কাগজের মতো রোজই ছিঁড়ে যাচ্ছি কুচি কুচি হয়ে ,
প্রথমে দু ভাগ, সেখান থেকে চার- ষোল – চৌষট্টি বা তারও বেশি ,
ছড়িয়ে পড়ছি আলতো ভাবে ;
রাতে আকোয়ারিয়ামে বুদ্বুদ দেওয়া পরীর প্রাণ কেড়ে নিলে
যেভাবে অতি ধীরে থিতিয়ে পরে শ্যাওলা , সোনালী শামুকটার
অলস খোলের ওপরে ।
আমার গল্পে সন্দেহ ?
বলছ ছিঁড়ে যাবার কোনও শব্দ শোনা যায় নি ?

আচ্ছা একটু ভেবে বলি তাহলে সত্যিটা -
ভেজা কাগজের মতো পড়ে আছি এককোণে,
নরম , নাজুক ।
কোনও কিছুর খোঁচা লাগলেই ধ্বংস হচ্ছি একটু করে ।
আমি বদলে যাচ্ছি, আমার জ্যামিতিও ;
কোনার দিক থেকে, মাঝের দিক থেকে ।
ভেজা , তাই কোথাও কোনও শব্দ হচ্ছে না ।

ডায়েরীর শেষ দিক থেকে ২৭
  • 5.00 / 5 5
2 votes, 5.00 avg. rating (94% score)

Comments

comments