আগের পর্ব – শুরুর কথা  

শুরুর কথা বলার পর অনেক দিন ব্যস্ততার জন্য এই সিরিজকে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারিনি। তাই পরপর দুটো পর্ব দেওয়ার জন্য লিখতে বসেছি। প্রথম পর্বে রেখেছি এখানের সবচেয়ে কমন পাখিদের। বাড়ির আশেপাশে সারাক্ষণ দেখা যায় এদের। এরা ছাড়াও অবশ্য আরও অনেক কমন পাখি আছে, তাদের দেখতে পাবেন অন্যান্য পর্বে।

বাড়ির আশেপাশের পাখির কথা বললে প্রথমেই মাথায় আসে কাকের কথা। এখানে অবশ্য কাক অতটাও বেশি দেখা যায়না আমাদের দেশের মত। এখানের কাকগুলো আচরণেও কম শহুরে। এখানের কাকগুলো সবই দাঁড়কাকের মত কালো। প্রধাণত দুরকম কাক দেখা যায় -  American Crow আর Fish Crow । এদের দুজনের মধ্যে চেহারার পার্থক্য খুব কম। কেবল ফিশ ক্রো আকারে একটু ছোটো। তবে ডাক শুনলে এদের সহজেই তফাত করা যায়। যদি কোনো কাকের ডাক শুনে মনে হয় তার সর্দি হয়েছে, তবে বুঝবেন সে হল গিয়ে ফিশ ক্রো।

American Crow

Fish Crow

শহুরে পাখিদের মধ্যে খুব কমন হল Europian Starling। গড়নে শালিখ শালিখ ভাব, যদিও দেখতে অন্যরকম। চকচকে কালো গায়ের রঙ, তার ওপর ফুটকি ফুটকি। এই ফুটকি গুলো শীতকালে বেশি স্পষ্ট হয়ে ওঠে। গায়ের চকচকে রঙ এমন যে তাতে আলো প্রতিফলিত হয়ে সব্জে বা বেগুনি রঙ এর লাগে অনেক সময়। অপরিণত অবস্থায় অবশ্য গায়ের রঙ চকচকের বদলে হয় ধূসর কালো।

Europian Starling (Breeding)

Europian Starling (Winter)


Europian Starling

এরপর বলা যাক নর্থ ক্যারোলিনার স্টেট বার্ড Northern Cardinal এর কথা। ছেলে পাখিদের গায়ের রঙ টকটকে লাল, কিন্তু মুখ দেখলে বেশ রাগী রাগী মনে হয়। মেয়েরা সব্জেটে ধূসর। মাথায় ঝুঁটিও আছে একখান। সুন্দর গানের গলা এদের। প্রায় সারা বছরই এদের দেখা মেলে, তবে শীতের সময় কমে আসে।

Northern Cardinal (Male)

Northern Cardinal (Female)

এবার যাদের কথা বলব তারা হল মকিংবার্ড, অর্থাৎ অন্যের গলা নকল করতে পারদর্শী। এদের মধ্যে Northern Mockingbird নকলে সবচেয়ে পটু। বিভিন্ন পাখিদের ডাকই শুধু নয়, অন্য প্রাণীদের ডাক, এমনকি কলিংবেলের আওয়াজও নকল করতে শুনেছি এদের। এরা কেন এরকম করে সেই নিয়ে বিজ্ঞানীদের মধ্যে মতভেদ আছে। বেশিরভাগ মনে করেন হয় বিপরীত লিঙ্গের পাখিদের আকৃষ্ট করার জন্য এরকম খেল দেখাতে আগ্রহী হয় এরা। অদ্ভুত এনার্জি এদের। যখন ডাকার মুডে থাকবে, টানা ডেকেই যাবে। শুধু তাই নয়, প্রতি মুহূর্তে পাল্টাবে ভ্যাংচানোর ভঙ্গি। হয়তো আপনি জানলার ধারে বসে ১০ মিনিটের ভিতর বেশ কয়েকরকম পাখির ডাক শুনে ভাবলেন "বসন্ত এসে গেছে"… নানান পাখিরা ভিড় করেছে আপনার বাগানে। বেরিয়ে দেখলেন সেখানে বসে আছে একটা মাত্র নর্দার্ন মকিংবার্ড। বোকা বানিয়েছে আপনাকে!

Northern Mockingbird

Grey Catbird হল আরেক ধরণের পাখি যারা নকলে পারদর্শী। গুগলে সার্চ করলেই এদের দুজনেরই "মকিং" এর রেকর্ডিং শুনতে পেয়ে যাবেন। গ্রে ক্যাটবার্ড এর রঙ ধূসর, মাথায় কালো টুপি। দাঁড়িয়ে থাকলে এরা লেজটা পাখার মত মেলে দেয় কখনো কখনো। গাছের ডালে বসলে কিন্তু লেজ থাকে অন্যরকম। তবে গাছের ডালের চেয়ে এদের ঝোপেঝাড়ে ঘোরাঘুরি করতে বেশি দেখা যায়।

Grey Catbird

Grey Catbird

গান গাওয়া পাখিদের আসল সময় বসন্ত হলে কি হবে, Tufted Titmouse সারাবছরই অবিশ্রান্ত গান গেয়ে চলে । হাল্কা গ্রে রঙ, মাথায় ঝুঁটি, ডানার নিচে বাদামীর ছোঁয়া। সুন্দর সুরেলা গলা। পূর্ব আমেরিকার পাখি এরা। এদের একটা মজার স্বভাব হল গাছের ডালে গিয়ে আরাম করে না বসলে বাবুদের খাবার খাওয়া হয়না। বার্ড ফীডারেই আসুক, বা মাটি থেকেই দানা সংগ্রহ করুক, সঙ্গে সঙ্গে উড়ে গিয়ে বসে পছন্দের ডালে। তারপর এক গ্রাস খাওয়া শেষ হলে আবার উড়ে আসে পরের গ্রাসের জন্য।

Tufted Titmouse (singing)

ঝোপেঝাড়ে নজর রাখলে চোখে পড়বে Brown Thrasher দের। দেহের উপরিভাগ বাদামী, পেটে সাদার উপর বাদামী ছিটে, সবমিলে খুব সুন্দর দেখতে। চেহারায় একটু বড়র দিকে। এদেরও গানের গলা বেশ সুন্দর। তবে এদের গান খুব অদ্ভুত। এই মুহূর্তেই মনে হবে ভারী মিহি গলা, তো পরমুহূর্তেই মনে হবে হেঁড়ে।

Brown Thrasher

সবশেষে বলব এই পর্বের সম্ভবত সবচেয়ে সুন্দর দেখতে পাখির কথা। Cedar Waxwing, সারা বছর দেখা মেলে এদেরও। তবে বেশিরভাগ সময় বসে থাকে মগডালে। শীতকালে সীডার বেরি খেতে নীচে নামলে ভাল করে দেখা যায়। সাধারণত বিশাল বড় দল বেঁধে থাকে এরা। এমনই মসৃণ মোমমাখানো গা, দেখলে রোবোট রোবোট মনে হতে পারে। ডানার দুপাশে অল্প লালের ছিটে, সাদা জামা, খয়েরী ওভারকোট, চোখে কালো গগলস, নীলচে লেজ আর লেজের ডগায় হলুদের ছিটে। সব মিলে অসাধারণ সুন্দর! আমার এই ছবিটায় অবশ্য খুব ভালভাবে বোঝা যাচ্ছেনা। পরে আরও ভাল ছবি পেলে দেওয়া যাবে। 

Cedar Waxwing

পরের পর্বে ফিরে আসছি Finch আর Thrush দের নিয়ে। সঙ্গে থাকুন।

 

*** সমস্ত ছবি আমার Canon Powershot S3 IS দিয়ে তোলা।

 

পরের পর্ব – ফিঞ্চ আর থ্রাশ  

 

নর্থ ক্যারোলিনার পাখি (১) – বাড়ির আশেপাশের পাখি
  • 0.00 / 5 5
0 votes, 0.00 avg. rating (0% score)

Comments

comments