তুমি রাতদিন      দালান বাড়িতে থাকো যে কত না সুখে।
আমি রাতদিন     স্বপ্ন আঁকি নীল আকাশের বুকে।
তুমি রাতদিন      সাজানো খাবার পাচ্ছো যে থরে থরে।
আমি রাতদিন     উপোস করি ছাউনি দেওয়া এ ঘরে।
তুমি রাতদিন      বৃষ্টি না হলে কর কত আপসোস।
আমি রাতদিন     ঝড়কে বলি, “আজ যেন না হোস”।
তুমি রাতদিন      শুনতে চাও যে মেঘের আর্তনাদ।
আমি রাতদিন     ভাবি বুঝি আজ ঝড়ে উড়ে যাবে ছাদ।
তুমি রাতদিন      হাওয়ার মেশিনে করছো নিজেকে হিম।
আমি রাতদিন     কাটাই যে ঘরে আলো জ্বলে টিমটিম।
তুমি রাতদিন      গাড়ি করে ঘুরে পুরাও যে মনোরথ।
আমি রাতদিন     পায়ে পায়ে চলে হেঁটে যাই দূরপথ।
তুমি রাতদিন      বিলাপ কর সবকিছু হারাবার।
আমি রাতদিন     স্বপ্ন দেখি তবু শুধু বাঁচবার।
তুমি রাতদিন      এত কিছু পেয়ে কথা বলো না পাওয়ার।
আমি রাতদিন     রোদ হাওয়া জলে মিশে হই একাকার।
তুমি রাতদিন      সুখী সেজে থাকো সব পেয়েছির দেশে।
আমি রাতদিন     যা পেয়েছি নিয়ে মহাসুখে থাকি শেষে।

 

রাতদিন
  • 2.00 / 5 5
1 vote, 2.00 avg. rating (61% score)

Comments

comments