অফিসগামী সাহেব-বিবি-গোলামেরা
হাই তুলছে ঘন ঘন
ভলভো-র ভেতরটা বেশ ঠান্ডা, বড্ডো আরাম…
তাইতো এক ঘন্টা লাইনে দাড়িয়েও নষ্ট হ্য় না সময়
বাস-এ উঠে সীট-টা দখল, স্বর্গের আরো খানিকটা কাছাকাছি
চোখে যুদ্ধজয়ের হাসি…

রুবি-র মোড়ে হাজার আম-পাবলিক যে যার কাজে
কেউ পাবলিক বাসে বাদুড়ঝোলা হবে,
কেউ ফেরি করতে গিয়ে খিস্তি শুনবে,
কেউ বা প্রেমিকার জন্য অপেক্ষায় ঘড়ি দেখবে
ঘন ঘন…
সবাই হা-ক্লান্ত।
সকাল ৯টার রোদের তাপ বাড়ছে দিন দিন
সূর্য-টা কি এগিয়ে আসছে ক্রমশ?
আমাদের ছোট্ট গ্রহটাকে টুক করে টেনে নেবে নিজের মধ্যে
সব জ্বলে পুড়ে মিশে যাবে বাতাসে, মহাকাশে
হোক না গ্রহটার সভ্যতার বিবর্তনের ইতিহাস লক্ষ বছরের
মহাকালের কাছে সে তো মুহূর্তমাত্র।

বাবু-বিবিরা ভাবছে, আহারে, কি কষ্ট ওদের
এই গরমে, পাবলিক ট্রান্সপোর্ট ভাবা যায়!
কি করে পারে ওরা, কি খায় সকালে?
বাড়ি ফিরে ঘেমো ঠোঁটে ফের, চুমু খায় বউকে?
ধুর, কি হবে এতো ভেবে
আয়েশ-ঘুম দেয় সব, এই চলন্ত-হিমঘরে
সেই আমেজেই সহনীয় হয়ে যাবে রোজকার অফিস-রুটিন
মিটিং-এর বাড়াবাড়ি,
পলিটিক্স-এর ছড়াছড়ি,
ডেডলাইনের কড়াকড়ি,
বস-এর নির্লজ্জ হারামিগিরি – সব…

নির্লিপ্তি-র থেকে বেশী শান্তি, আর কিছুতে নেই।

হিমঘরে কয়েকজন
  • 0.00 / 5 5
0 votes, 0.00 avg. rating (0% score)

Comments

comments